করোনা পরিস্থিতিতে করণীয় নির্ধারণে বৈঠকে বসছে সরকার

দুই দফায় কঠোরতর লকডাউন দিলেও করোনা পরিস্থিতির কোনো উন্নতি হয়নি। বরং পরিস্থিতি আরো প্রতিকূলতার দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। আবার লকডাউনে খেটে খাওয়া মানুষের জীবনে নেমে এসেছে অসহ্য কষ্ট ও দারিদ্র্যতা। দেশের অর্থনৈতিক কাঠামো ভেঙে পরছে। 

লকডাউনে করোনার প্রকোপ ত কমছেই না অপরদিকে তৈরি হচ্ছে হাজারো সমস্যা। শিক্ষা ব্যবস্থা ,  ব্যবসা প্রতিষ্ঠান,  যানবাহন ব্যবস্থাপনা সবকিছুর চাকা নিশ্চল হয়ে পড়েছে। দেড় বছরেরও বেশি সময় ধরে চলা মহামারী পরিস্থিতির কোনো নিয়ন্ত্রণ হয়নি। বরং দেখা দিচ্ছে দুরব্যবস্থাপনা।  

বিধিনিষেধ আরোপ হলেও কোনোভাবেই করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা কমানো যাচ্ছে না কেন তার জন্য  করণীয় নির্ধারণে মঙ্গলবার (২৭ জুলাই) সচিবালয়ে এক গুরুত্বপূর্ণ  বৈঠকে বসছেন সরকারের শীর্ষ পর্যায়ের কর্মকর্তারা।  

সোমবার (২৬ জুলাই) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে মন্ত্রিসভার ভার্চুয়াল বৈঠক শেষে সচিবালয়ে মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান। তিনি বলেন, মঙ্গলবার দুপুর দেড়টায় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সভাপতিত্বে সচিবালয়ে বড় মিটিং অনুষ্ঠিত হবে।

বিধিনিষেধ আরও বাড়ানো হবে কি-না জানতে চাইলে সচিব বলেন  আগামীকালের মিটিংয়ে সে বিষয়ে  সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। তিনি আরো  বলেন, হাসপাতালের ডাক্তার বাড়িয়ে ও সিট বাড়িয়ে করোনা নিয়ন্ত্রণ করা যায় না। মানুষ যদি মাস্ক না পরে, দূরত্ব না মানে তাহলে কোন ভাবেই করোনা নিয়ন্ত্রণ সম্ভব নয়।

বিধিনিষেধে বেসরকারি অনেক অফিস খোলা। এ বিষয়ে কোনো পদক্ষেপ নেয়া হবে কি-না জানতে চাইলে মন্ত্রিপরিষদ সচিব বলেন, ‘আমার গতকালও ইন্ডাস্ট্রিয়াল পুলিশের এডিশনাল আইজির সঙ্গে কথা বলেছি। অফিসগুলোর কিছু মেশিন চালু রাখতে হয়, সার্ভিসিং করতে হয়। তাই টেকনিক্যাল কর্মীদের আসা যাওয়া করতে হয়। বিষয়গুলো আমাদের মোবাইল কোর্ট চেকিং করছে।’

By নিজস্ব প্রতিবেদক

রংপুরের অল্প সময়ে গড়ে ওঠা পপুলার অনলাইন পর্টাল রংপুর ডেইলী যেখানে আমরা আমাদের জীবনের সাথে বাস্তবঘনিষ্ট আপডেট সংবাদ সর্বদা পাবলিশ করি। সর্বদা আপডেট পেতে আমাদের পর্টালটি নিয়মিত ভিজিট করুন।

Related Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *