স্টিম বোট আবিষ্কারের ঘটনা সমন্ধে বিস্তারিত জানুন।

স্টিম বোট আবিষ্কারের ঘটনাঃ

আজ বিজ্ঞানের আশীর্বাদ লব্ধে বিশ শতকে দাঁড়িয়ে আমরা কল্পনাও করতে পারি না, একদিন দুটো ঘোড়ার সাহায্যে জলযান চালানো হত। ঘোড়া জলযান টানে এই দৃশ্য দেখতে মানুষ ভিড় জমাতো না। কারণ পৃথিবীর প্রায় সব দেশের মানুষের চোখই অভ্যস্ত। কিন্তু ঘোড়ার জলযান টানার কথা শুনলে আমাদের কপালের চামড়ায় ভাঁজ পড়তে বাধ্য।

তবে অধিকাংশ ক্ষেত্রে জলযান টানার কাজে দুটোর বেশি ঘোড়া ব্যবহার করা হত। বিভিন্ন প্রাচীন পত্র-পত্রিকা ও পুঁথি থেকে জানা যায়, সতের শ’ খ্রিষ্টাব্দে আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রে কুড়ি বাইশটি ঘোড়া ব্যবহার করে প্রায় দু’শ জন যাত্রী নিয়ে ঘোড়া জলযান টেনে নিয়ে মোটামুটি দ্রুত গতিতে ছুটতে পারত।
আবার কোন জলযানে ঘোড়ার পরিবর্তে খচ্চরও ব্যবহার করা হত।

জানা যায় উনিশ শ’ দশ খ্রিষ্টাব্দে, আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের মৈসৌরির সেন্টমেরিতে মিসিসিপি নদী পারাপারে ঘোড়ায় টানা জলযান ব্যবহার করা হত। এ কাজে খচ্চরের ব্যবহারও কম ছিল না।

আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্র ছাড়া অন্যান্য দেশে, বিশেষ করে ইউরোপের কোনো কোনো অঞ্চলেও ঘোড়ায় টানা জলযান নদী পারাপারের কাজে ব্যবহার করা হত।

স্থলপথে জীবজন্তুর দৈহিক শক্তিকে কাজে লাগিয়ে মালপত্র আমদানি রপ্তানির ব্যবস্থা আজও পৃথিবীর প্রায় সব দেশেই আছে। মেরু প্রদেশে কুকুরে টানা স্লেজ গাড়িতো যাতায়াত ও মালপত্র আনা-নেওয়ার কাজে একমাত্র অবলম্বন। কিন্তু পশু শক্তিকে কাজে লাগিয়ে নৌকা চালাবার ব্যবস্থাটি প্রাচীন কালে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে ছিল, এ কথা আমাদের অনেকেরই জানা নেই।

৪র্থ শতাব্দীর রোমান পুঁথির একটি চিত্রের মাধ্যমে জানা যায়, ষাঁড়ের সাহায্যে সে দেশের মানুষ রণতরী পর্যন্ত চালাত। আর জাপানি পথে যাতায়াতের ক্ষেত্রে ষাঁড়, ঘোড়া ও খচ্চর ব্যবহৃত হত। ষাঁড় বা ঘোড়াগুলোকে একটি ক্যাপস্টেন এর সাহায্যে জুড়ে দেওয়া হত, আর ক্যাপস্টেনটি গিয়ারের সাহার্যে দুটো প্যাডেল হুইলের সাথে যুক্ত থাকত।

তবে কোনো কোনো ঐতিহাসিকদের মতে, উক্ত ব্যবস্থা সম্বলিত ‘লিবারনা’ নামক রণতরী পুঁথির পাতাই সীমাবদ্ধ ছিল। একে বাস্তবে প্রয়োগ করা হয় নি। কিন্তু পশু বা মানুষে চালাবে প্যাডেল হুইল যুক্ত জাহাজ এরকম চিন্তা ভাবনা নিয়ে বিজ্ঞানী লিওনার্দো দ্য ভিঞ্জি বহুদিন গবেষণায় লিপ্ত ছিলেন।

ইতালির বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিবিদ আগোস্টিনো রামেলিও এ ব্যাপারটি নিয়ে কম গবেষণা করেননি। অতঃপর আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্রের বিজ্ঞান জন ফিচ প্রথম অশ্ব চালিত জলযান আবিষ্কার করেন ১৭৯১ খ্রিষ্টাব্দে। অবশেষে ১৯ শতকের গোড়ার দিকে ফিচ-ই স্টিম বোট বা বাষ্প চালিত জলযান আবিষ্কার করেন।

তথ্য সংগ্রহেঃ মেহেজাবীন শারমিন প্রিয়া।

Leave a Comment