শ্বেত রক্তকণিকা বৃদ্ধি পাওয়ার কারণ কী?

আমাদের রক্তে যে তিন ধরনের রক্তকণিকা থাকে তার মধ্যে অন্যতম একটি হলো শ্বেত রক্তকণিকা।এর সাধারণ পরিমাণ হলো প্রতি কিউবিক মিলিমিটার রক্তে ৪০০০-১১০০০ টি।তবে এই পরিমাণ অনেকসময় বেড়ে যেতে পারে।এ অবস্থাকে বলা হয় লিউকোসাইটোসিস।

আমাদের প্রতি কিউবিক মিলিমিটার রক্তে শ্বেত রক্তকণিকার পরিমাণ যখন ১১০০০ এরও বেশি হয় তখন সে অবস্থাকে বলে লিউকোসাইটোসিস।

এ রোগের ফিজিওলজিকাল কারণ হলো-
*শারীরিক ব্যায়াম
*ভারী খাদ্য গ্রহণ
*গর্ভাবস্থা এবং সন্তান জন্মদান
*মানসিক চাপ
*ঠান্ডা পানিতে গোসল করা

এ রোগের প্যাথলজিকাল কারণ হলো-
*এলার্জিজনিত রোগ
*ঔষুধের প্রতিক্রিয়া
*পারিবারিক কারণ
*পলিসাইথেমিয়া
*ম্যালেরিয়া
*সিফিলিস
*কোলাজেন ভাসকুলার ডিজিজ
*ব্যাকটেরিয়াঘটিত রোগ
*ভাইরাসঘটিত রোগ
*প্রোটোজোয়াঘটিত রোগ

স্বাভাবিক পরিমাণের চেয়ে অতিরিক্ত কোনোকিছুই আমাদের শরীরের জন্য ভালো নয়।শ্বেতরক্তকণিকার পরিমাণ বেড়ে যাওয়াও আমাদের শরীরের জন্য ভালো নয়।এমনকি এর পরিমাণ অতিরিক্ত বেড়ে গেলে আমরা ক্যান্সারেও আক্রান্ত হতে পারি।যে ক্যান্সারের সঠিক চিকিৎসা আজ পর্যন্ত আবিষ্কৃত হয়নি।ফলে এটি আমাদের মৃত্যুর কারণও হতে পারে।তাই আমাদের উচিত এ ব্যাপারে সচেতন থাকা এবং শ্বেত রক্তকণিকা সহ সকল রক্ত উপাদানের পরিমাণ স্বাভাবিক রাখতে সচেষ্ট হওয়া।

©দীপা সিকদার জ্যোতি

Leave a Comment