মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি

মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি যার ফুলে পথচারীসহ এলাকাবাসীকে পাগল করে দিচ্ছে। ছোট মাঠের হলুদ ফুলগুলোকে মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি মনে হয় দারুণ সৌন্দর্যের উৎস।

আমরা আবেগগতভাবে ‘গ্যাস ফুরিয়ে’ অনুভব করছি। সূর্যমুখীর হাসিতে মন নেচে উঠছে, সবুজের বুকে হলুদ ফুল ডাকছে অপূর্ব সৌন্দর্যের স্বপ্নময় তালুতে। বসন্তে রূপের স্নিগ্ধতার উৎসের সন্ধানে মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে ছুটে আসছেন ফুল-প্রকৃতিপ্রেমী দর্শনার্থীরা। বিরামপুর উপজেলার প্রকৃতির অপরূপ সৌন্দর্য।

এমন দৃশ্য দেখা যায় দিনাজপুরের বিরামপুর-হিলি সড়কের জোয়ালকামারা গ্রামের কাছে। ওড়াপাকার মোড় পেরিয়ে পাকা রাস্তার পূর্ব পাশে দেখা মিলবে হাসির সূর্যমুখী। দর্শনার্থীরা ফুল নিয়ে ছবি তুলতে মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি ব্যস্ত। মানুষের গায়ের স্পর্শে ঝরে পড়ছে পাপড়ি, ভেঙ্গে যাচ্ছে গাছ। কিন্তু সুন্দর ফুলের ফাঁকে ফোনের ক্যামেরায় সেলফি তুলছেন বিভিন্ন বয়সের নারী-পুরুষ। সূর্যমুখী শুধু দেখতে সুন্দরই নয়, গুণেও অনন্য।

সুন্দরের মায়াবী প্রকৃতি দেখতে আসা সোহেল রানা বলেন, সূর্যমুখী ক্ষেত ছোট হলেও মন ভরে যায়। আহ, কি সুন্দর! সূর্যমুখী ফুলে মাঠ হাসছে। রোদে সূর্যমুখী ফুল দেখে অবাক মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি হলাম। সূর্যের দিকে থাকা। সেজন্য সূর্যমুখী নামটা বুঝি। ”

সূর্যমুখী চাষী আবু তাহের বলেন, আমি এবার পরীক্ষামূলক ১২ একর জমিতে সূর্যমুখী চাষ করেছি। এ পর্যন্ত সূর্যমুখী চাষে খরচ হয়েছে প্রায় চার হাজার টাকা। ইউরিয়া, ফসফেট, পটাশসহ প্রয়োজনীয় সার প্রয়োগ মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি করেছি। ভিটার পাশে নিজের বাড়ি থাকায় আমি নিয়মিত হাজিরা দিতে পারি। আমাকে দেখে এলাকার অনেক কৃষক মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি সূর্যমুখী ফ্লু চাষে আগ্রহ দেখাচ্ছেন। সূর্যমুখী চাষে সফলতা আশা করছি।

বিরামপুর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা নিকচান চন্দ্র পাল বলেন, “এবার উপজেলার ৩০ জন কৃষককে উপজেলা কৃষি বিভাগ থেকে সূর্যমুখীর বীজ দেওয়া হয়েছে। লাভজনক ফসল মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি সূর্যমুখী। আমরা আশা করছি সূর্যমুখী চাষ করে কৃষকরা লাভবান হবেন।

আগামীতে উপজেলায় সূর্যমুখীর চাষ মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি বাড়বে। সূর্যমুখী চাষের লক্ষ্য নিছক বিনোদন নয়। সূর্যমুখী বীজ থেকে উৎপাদিত তেল স্বাস্থ্যকর এবং ভালো মানের। সূর্যমুখী তেল ভোজ্যতেলের ঘাটতি মুগ্ধতা ছড়াচ্ছে সূর্যমুখীর হাসি পূরণ করবে। বীজ তেল, তেল এবং গাছের গুঁড়িতে জ্বালানী হিসাবে ব্যবহার করা যেতে পারে। “

Leave a Comment