মধুমতী সেতুতে গাড়ি চলবে সোমবার দিবাগত রাত ১২টা থেকে

অবশেষে দেশের প্রথম ছয় লেনের দৃষ্টিনন্দন সেতু উদ্বোধন করা হচ্ছে আগামীকাল সোমবার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে সেতুটি উদ্বোধন করবেন। এরপর আগামীকাল সোমবার দিবাগত রাত ১২টা থেকে কালনায় মধুমতী সেতুতে চলবে গাড়ি।

নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার কালনা ঘাটে মধুমতী নদীতে সেতুটি নির্মাণ করা হয়েছে। সেতুর নামকরণ করা হয়েছে মধুমতী সেতু। সেতু উদ্বোধনের খবরে আনন্দে ভাসছেন নড়াইলসহ আশপাশের জেলার মানুষ। সেতুর দুই তীরে সৃষ্টি হয়েছে উৎসবের আমেজ।

আজ রোববার বিকেল থেকে রাত আটটা পর্যন্ত সেতু এলাকায় অবস্থান করে দেখা গেছে, সেতু এলাকায় উৎসুক মানুষের ভিড়। নিরাপত্তার কারণে সেতুতে উঠতে না দেওয়ায় আশপাশে ঘুরছেন তাঁরা।

 

লোহাগড়া কলেজপাড়ার গৃহিণী শাহানারা পারভিন স্বামী-সন্তান ও জামাই-মেয়ে নিয়ে মধুমতীর তীরে এসেছেন। তিনি বলেন, ‘অন্য রকম এক অনুভূতি, অন্য রকম আবেগ। সেতুতে উঠতে পারলে মনটা ভরে যেত।’

রাতের দৃষ্টিনন্দন আলোয় সেতুর স্থাপত্যশৈলী আরও আকর্ষণীয় হয়ে উঠেছে। দূর-দূরান্ত থেকেও অনেকে সেতু দেখতে এসেছেন। ভালো লাগার মুহূর্তগুলো দূর থেকেই ক্যামেরাবন্দী করছেন তাঁরা। এ অঞ্চলের মানুষের ফেসবুক আইডিতে ভরে গেছে সেতুর ছবি ও উদ্বোধনী আমেজের চিত্র।

সেতুর লোহাগড়ার কালনা প্রান্তে উদ্বোধনের মঞ্চ তৈরি করা হয়েছে। সেখানে পাঁচটি পর্দার মাধ্যমে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হবেন প্রধানমন্ত্রী। আজ বেলা তিনটার দিকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে যুক্ত হয়ে আগামীকালের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের মহড়া দেওয়া হয়।

সন্ধ্যায় সেতু এলাকায় কথা হয় সেতুর প্রকল্প পরিচালক শ্যামল ভট্টাচার্য ও প্রকল্প ব্যবস্থাপক মো. আশরাফুজ্জামানের সঙ্গে। তাঁরা জানান, আগামীকাল সোমবার দিবাগত রাত ১২টা থেকে গাড়ি চলাচলের জন্য সেতু খুলে দেওয়া হবে। সেতুতে ৮৪টি সৌরবিদ্যুতের ল্যাম্পপোস্ট বসানো হয়েছে। এতে সেতু আলোকিত হয়েছে। আটটি বুথের টোল প্লাজাও পুরোপুরি প্রস্তুত করা হয়েছে। ১ নভেম্বর থেকে ডিজিটাল পদ্ধতিতে টোল নেওয়া হবে। এর আগে ম্যানুয়াল পদ্ধতিতে টোল আদায় হবে। এই কর্মকর্তারা জানান, বেলা সাড়ে ১১টা থেকে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান শুরু হবে। দুপুর ১২টায় প্রধানমন্ত্রী গণভবন থেকে ভার্চ্যুয়ালি যুক্ত হবেন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে। অতিথিদের বক্তব্য শেষে সাড়ে ১২টায় প্রধানমন্ত্রী ভাষণ দেবেন ও সেতুর উদ্বোধন ঘোষণা করবেন।

জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান বলেন, এক হাজার অতিথির ধারণক্ষমতাসম্পন্ন উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের প্যান্ডেল তৈরি করা হয়েছে। আগামীকাল বেলা সাড়ে ১১টা থেকে কালনা ঘাট দিয়ে যানবাহন চলাচল সীমিত করা হয়েছে।

Leave a Comment