প্রথমবারের মতো ‘গুচ্ছ’ পদ্ধতিতে বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা শুরু

মহামারীর সময়ে শিক্ষার্থীদের ভোগান্তি আর ঝুঁকি কমাতে দেশে প্রথমবারের মতো ২০টি বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তিতে একযোগে শুরু হয়েছে ‘গুচ্ছ’ পদ্ধতির পরীক্ষা। রবিবার দুপুর ১২টায় বিজ্ঞান বিভাগের ভর্তিযুদ্ধ দিয়ে ‘গুচ্ছ’ পদ্ধতির এই ভর্তি পরীক্ষা শুরু হয়। এ বিভাগের পরীক্ষায় অংশ নিচ্ছেন ১ লাখ ৩১ হাজার ৯০৫ জন শিক্ষার্থী। এক ঘণ্টার এ পরীক্ষায় তাদের ১০০ নম্বরের এমসিকিউ প্রশ্নের উত্তর দিতে হবে। পরীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে প্রকাশিত হবে মেধাতালিকা।

গুচ্ছভুক্ত ২০টি বিশ্ববিদ্যালয় হল- জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়, ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়, কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়, বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়, বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়, রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ডিজিটাল বিশ্ববিদ্যালয়, শেখ হাসিনা বিশ্ববিদ্যালয়, শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, যশোর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, রাঙামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, পটুয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। গুচ্ছে থাকা বিশ্ববিদ্যালয়গুলো মেধাতালিকা থেকে নিজেদের শর্ত পূরণ সাপেক্ষে ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক প্রথম বর্ষে শিক্ষার্থী ভর্তি করবে।

গুচ্ছ পরীক্ষা কমিটির সদস্য সচিব ও জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যলয়ের রেজিস্ট্রার প্রকৌশলী ওহিদুজ্জামান জানান, সারা দেশে ২৮টি কেন্দ্রে এই পরীক্ষা নেওয়া হচ্ছে। একইভাবে আগামী ২৪ অক্টোবর মানবিক বিভাগ এবং ১ নভেম্বর বাণিজ্য বিভাগের ভর্তি পরীক্ষা হবে। গুচ্ছভুক্ত এসব বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিতে সব মিলিয়ে ৩ লাখ ৬১ হাজার ৪০৬ জন শিক্ষার্থী প্রাথমিকভাবে আবেদন করেন।

Leave a Comment

betvisa