একুশে বই মেলা অবশেষে শুরু হচ্ছে

একুশে বই মেলা অবশেষে শুরু হচ্ছে

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ একুশে বই মেলা অবশেষে শুরু হচ্ছে

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গতকাল রাজধানীতে আমার একুশে বই মেলা -২০১২ উদ্বোধন করেছেন। তিনি বিকালে গন ভবন থেকে কার্যত বাংলা একাডেমিতে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন।

মেলা সপ্তাহের দিন বিকাল ৩ টা থেকে রাত ৯ টা পর্যন্ত খোলা থাকবে; শুক্র ও শনিবার সকাল সাড়ে ৮ টা থেকে রাত ৮ টা পর্যন্ত বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণে ও সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে এপ্রিল অবধি দুপুরের খাবার ও প্রার্থনার এক ঘন্টা বিরতি সহ।

February তিহ্যবাহী ফেব্রুয়ারি মাসে আয়োজিত মেলা মহামারীজনিত কারণে স্থগিত হয়েছিল।

এবারের বইমেলা বাংলাদেশের একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধের শহীদদের উদ্দেশ্যে উত্সর্গ করা হয়েছে। মূল থিমটি হ’ল “বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবর্ষ এবং স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী”।

প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান রচিত এবং বাংলা একাডেমি দ্বারা প্রকাশিত “আমার দেখ নোয়া চিন” এর সরকারী ইংরেজী সংস্করণ “নিউ চীন 1952” এর প্রচ্ছদ উন্মোচন করেছেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি বাংলা একাডেমি সাহিত্য পুরস্কার বিতরণকারীদের মাঝে বিতরণ করেন।

প্রধানমন্ত্রীর পক্ষে, সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ পুরষ্কার গ্রহণকারীদের হাতে তুলে দেন। এই বছরের মেলার জন্য বরাদ্দকৃত জমিটি কোভিড -১৯ সামাজিক দূরত্ব প্রয়োজনীয়তার জন্য 15,00,000 বর্গফুটে প্রসারিত করা হয়েছে। এ বছর মোট ৪৪৪ টি সংস্থাকে মোট ৮৩৪ টি স্টল বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে।

এই বছর শিশুদের কর্নার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সরানো হলেও “শিশু প্রহর” ডাকা হয়েছে। “লিটল ম্যাগ কর্নার” এছাড়াও সেখানে সরানো হয়েছে।

মেলায় দর্শনার্থীদের সব সময় মুখোশ পড়তে হবে। দর্শনার্থীদের জন্য সকল প্রবেশ পথে হ্যান্ড স্যানিটাইটিসেশন বুথও স্থাপন করা হয়েছে।

১৯ মার্চ থেকে এপ্রিল ১৪ ই এপ্রিল পর্যন্ত প্রতিদিন বিকেল চারটায় মেলা অনুষ্ঠানের মূল পর্যায়ে সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে, এরপরে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হবে।

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে চারটি জরুরি আশ্রয়কেন্দ্র রয়েছে।

সমস্ত প্রয়োজনীয় স্বাস্থ্য সতর্কতার পাশাপাশি ঘটনাস্থলে কোনও অপ্রীতিকর ঘটনা রোধে কড়া নিরাপত্তার ব্যবস্থা রয়েছে।

সনাতন অমর একুশে বোয় মেলা ১৯৭২ সালে বাংলা একাডেমি প্রাঙ্গণে অনানুষ্ঠানিকভাবে শুরু হয়েছিল। যাইহোক, একাডেমি আনুষ্ঠানিকভাবে 1978 সাল থেকে প্রতি বছর মেলার আয়োজন করার দায়িত্ব নিয়েছিল।

By নিজস্ব প্রতিবেদক

রংপুরের অল্প সময়ে গড়ে ওঠা পপুলার অনলাইন পর্টাল রংপুর ডেইলী যেখানে আমরা আমাদের জীবনের সাথে বাস্তবঘনিষ্ট আপডেট সংবাদ সর্বদা পাবলিশ করি। সর্বদা আপডেট পেতে আমাদের পর্টালটি নিয়মিত ভিজিট করুন।

Related Post

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *